নেপালে রাজনৈতিক অস্থিরতা, প্রতিনিধি দল পাঠাল চীন
jugantor
নেপালে রাজনৈতিক অস্থিরতা, প্রতিনিধি দল পাঠাল চীন

  যুগান্তর ডেস্ক  

২৮ ডিসেম্বর ২০২০, ০০:০০:০০  |  প্রিন্ট সংস্করণ

চলমান রাজনৈতিক সংকটের মধ্যে নেপালে উচ্চপর্যায়ের একটি প্রতিনিধি দল পাঠিয়েছে চীন। চার সদস্যবিশিষ্ট প্রতিনিধি দলটি রোববার সকালে কাঠমান্ডুতে পা দেয়।

দলটির নেতৃত্ব দিচ্ছেন চীনা কমিউনিস্ট পার্টির একজন উপমন্ত্রী। নেপালের ত্রিভুবন বিমানবন্দরে চীনের রাষ্ট্রদূত হু-ইয়াঙ্কি তাদের স্বাগত জানান।

তবে এ সময় নেপালের কোনো প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন না। এদিকে রাজনৈতিক অচলাবস্থা কাটানোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন নেপালের রাজনৈতিক নেতারা। তারই অংশ হিসেবে ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির নতুন অধিবেশনের তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে।

পার্লামেন্ট ভেঙে দেয়ার এক সপ্তাহের মাথায় শনিবার অধিবেশনের দিন ঘোষণা করেন দেশটির প্রেসিডেন্ট বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারি। নতুন বছরের প্রথম দিনেই ওই অধিবেশন বসবে বলে জানান তিনি। কাঠমান্ডু পোস্ট।

নেপালে এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে চরম রাজনৈতিক অস্থিরতা চলছে। প্রধানমন্ত্রী কেপি শর্মা ওলির সুপারিশের ভিত্তিতে প্রেসিডেন্ট বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারি গত রোববার দেশটির পার্লামেন্ট ভেঙে দিলে রাজনৈতিক সংকটে পড়ে নেপাল।

একই সঙ্গে বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারি ঘোষণা দেন, নির্ধারিত সময়ের প্রায় এক বছর আগে দেশটিতে আগামী ৩০ এপ্রিল ও ১০ মে দুই দফায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

নেপালে রাজনৈতিক অস্থিরতা, প্রতিনিধি দল পাঠাল চীন

 যুগান্তর ডেস্ক 
২৮ ডিসেম্বর ২০২০, ১২:০০ এএম  |  প্রিন্ট সংস্করণ

চলমান রাজনৈতিক সংকটের মধ্যে নেপালে উচ্চপর্যায়ের একটি প্রতিনিধি দল পাঠিয়েছে চীন। চার সদস্যবিশিষ্ট প্রতিনিধি দলটি রোববার সকালে কাঠমান্ডুতে পা দেয়।

দলটির নেতৃত্ব দিচ্ছেন চীনা কমিউনিস্ট পার্টির একজন উপমন্ত্রী। নেপালের ত্রিভুবন বিমানবন্দরে চীনের রাষ্ট্রদূত হু-ইয়াঙ্কি তাদের স্বাগত জানান।

তবে এ সময় নেপালের কোনো প্রতিনিধি উপস্থিত ছিলেন না। এদিকে রাজনৈতিক অচলাবস্থা কাটানোর চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন নেপালের রাজনৈতিক নেতারা। তারই অংশ হিসেবে ন্যাশনাল অ্যাসেম্বলির নতুন অধিবেশনের তারিখ ঘোষণা করা হয়েছে।

পার্লামেন্ট ভেঙে দেয়ার এক সপ্তাহের মাথায় শনিবার অধিবেশনের দিন ঘোষণা করেন দেশটির প্রেসিডেন্ট বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারি। নতুন বছরের প্রথম দিনেই ওই অধিবেশন বসবে বলে জানান তিনি। কাঠমান্ডু পোস্ট।

নেপালে এক সপ্তাহের বেশি সময় ধরে চরম রাজনৈতিক অস্থিরতা চলছে। প্রধানমন্ত্রী কেপি শর্মা ওলির সুপারিশের ভিত্তিতে প্রেসিডেন্ট বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারি গত রোববার দেশটির পার্লামেন্ট ভেঙে দিলে রাজনৈতিক সংকটে পড়ে নেপাল।

একই সঙ্গে বিদ্যাদেবী ভাণ্ডারি ঘোষণা দেন, নির্ধারিত সময়ের প্রায় এক বছর আগে দেশটিতে আগামী ৩০ এপ্রিল ও ১০ মে দুই দফায় নির্বাচন অনুষ্ঠিত হবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন